ঢাকা ০২:৩৫ অপরাহ্ন, বুধবার, ১৯ জুন ২০২৪, ৫ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
Logo ময়মনসিংহে মানসিক রোগী রাজিয়া খাতুুন হত্যার রহস্য উদঘাটন ০৩ জন গ্রেফতার Logo শ্রীমঙ্গলে অর্ধশতাধিক ছিন্নমূলে ঈদ উপহার দিলো ওয়ার্ক ফর হিউম্যানিটি Logo ফাজিলপুরে হাফেজিয়া মাদ্রাসার ছাত্রদের জন্য মুসলিম এইড বাংলাদেশ (MAB) এর কুরবানি কর্মসূচী-২০২৪ Logo শুকনো জায়গার অভাবে, সিলেটে অনেকেই কোরবানী দিতে পারছেন না Logo পুলিশ পরিচয়ে ছিনতায়ের অভিযোগে সাবেক সেনা সদস্য গ্রেফতার Logo কালিয়াকৈরে ডাঃ ডালেম চন্দ্র বর্মনের স্মরণসভা অনুষ্ঠিত Logo ঈদের আনন্দে প্রবাসীরা কতটুকু হাসি খুশি থাকে Logo ঈদুল আযাহার নামাজ আদায় চকশৈল্যা বাজার ঈদগাহ মাঠে। Logo বিরামপুরে সৌদির সাথে মিল রেখে ১৫টি গ্রামের পরিবারে ঈদুল আজহা উদযাপন Logo শেরপুরে পবিত্র ঈদুল আযহার উপলক্ষে শুভেচ্ছা ও আর্থিক সহায়তা দিলেন ছানুয়ার হোসেন ছানু এমপি

জোর ধবস্ত করে জমি দখল ও পাকা সরিষার উপরে বালু চাপা দিচ্ছে মান্নান ফকির

মো: সোহরাওয়ার্দী হোসেন, স্টাফ রিপোর্টার সিরাজগঞ্জ :
  • আপডেট সময় : ১২:১৮:১৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২৪ ৪০ বার পড়া হয়েছে

মো: সোহরাওয়ার্দী হোসেন, স্টাফ রিপোর্টার সিরাজগঞ্জ :সিরাজগঞ্জ জেলা বেলকুচি উপজেলায় সাং-গোপরেখী এলাকায় জমি নিয়ে বিরোধের জেরে মারধর ঘটনা অভিযোগ উঠেছে মোঃ মান্নান ফকির বিরুদ্ধে ।( ২৮ জানুয়ারি ) রোজ সোমবার সময় আনুমানিক সকাল ৮ ঘটিকায় সিরাজগঞ্জ জেলা বেলকুচি উপজেলায় সাং গোপরেখী উত্তরপাড়া ২৫ শতাংশ জমি জোরপূর্বক দখল করার উদ্দেশ্যে মাটি ফেলছে। উক্ত সময় মাটি ফালাতে নিষেধ করিলে মান্নান ফকির সহ তার লোক জন অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে।গালিগালাজ করিতে নিষেধ করিলে ইয়াহিয়া কে তার হাতে থাকা কাঠের বাটাম এবং লোহার রড দিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে মারপিট করে এবং মান্নান ফকির সহ তার লোক জন একজোট হয়ে শরীরের বিভিন্নস্থানে এলোপাথাড়ী ভাবে মারপিট করে জখম করে দেয়। উক্ত সময়ে ইয়াহিয়া প্রাণে বাঁচাতে চিৎকার করতে থাকলে আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে আসিলে বিভিন্ন প্রকারের ভয়ভীতি ও প্রাণনাশকের হুমকি প্রদান করে ঘটনাস্থল থেকে চলে যায়। এ ঘটনায় ওই দিন বিকালে ইয়াহিয়া (৩০)
৩ জনের নাম উল্লেখ করে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। অভিযোগক্তরা হলেন ১। মোঃ মান্নান ফকির (৫০), পিতাঃ মৃত ছোরহাব আলী ফকির, ২। মোঃ আলম মোল্লা (৩৫), পিতাঃ মৃত সন্তোষ মোল্লা, ৩।মোঃ ইয়াছিন (৩৫), পিতাঃ অজ্ঞাত, তিন জনের নামে এনায়েতপুর থানা অভিযোগ দিয়ে আসেন।

এই ঘটনার সাক্ষী ১। মোছাঃ রহেলা খাতুন (৪৫), স্বামীঃ মোঃ আব্দুর রশিদ, ২। মোছাঃ হাজরা খাতুন(৪৫), স্বামীঃ মোঃ আনোয়ার, ৩। মোছাঃ শাহানাজ (৪০), স্বামীঃ মোঃ নজরুল,

সরেজমিনে যেয়ে পরে দেখা যায়, পাকা সরিষার উপরে বালু দিয়ে চাপা দেওয়া হচ্ছে।
এ বিষয়ে মান্নান ফকিরের কাছে জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিক দের বলেন : আমার জমির ফসল ইয়াহিয়ারা সরিষা ফলন করছে।
আর সরিষা রাষ্ট্রের সম্পদ তাই কি, নষ্ট করা না করা আমার বিষয়। রাষ্ট্রের সম্পদনষ্ট করছি তাই সরকার কি করবে। তিনি আরো বলেন আমার বিরুদ্ধে যা ইচ্ছা লিখতে পারেন সমস্যা নেই। আমি কাহকে দেখে ভয় পাই না।

এ ব্যাপারে এনায়েতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বলেন, জমি সংক্রান্ত বিষয়ে দুইপক্ষের মধ্যে বিরোধ নিয়ে একটি অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ট্যাগস :
Translate »

জোর ধবস্ত করে জমি দখল ও পাকা সরিষার উপরে বালু চাপা দিচ্ছে মান্নান ফকির

আপডেট সময় : ১২:১৮:১৪ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২৪

মো: সোহরাওয়ার্দী হোসেন, স্টাফ রিপোর্টার সিরাজগঞ্জ :সিরাজগঞ্জ জেলা বেলকুচি উপজেলায় সাং-গোপরেখী এলাকায় জমি নিয়ে বিরোধের জেরে মারধর ঘটনা অভিযোগ উঠেছে মোঃ মান্নান ফকির বিরুদ্ধে ।( ২৮ জানুয়ারি ) রোজ সোমবার সময় আনুমানিক সকাল ৮ ঘটিকায় সিরাজগঞ্জ জেলা বেলকুচি উপজেলায় সাং গোপরেখী উত্তরপাড়া ২৫ শতাংশ জমি জোরপূর্বক দখল করার উদ্দেশ্যে মাটি ফেলছে। উক্ত সময় মাটি ফালাতে নিষেধ করিলে মান্নান ফকির সহ তার লোক জন অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে।গালিগালাজ করিতে নিষেধ করিলে ইয়াহিয়া কে তার হাতে থাকা কাঠের বাটাম এবং লোহার রড দিয়ে হত্যার উদ্দেশ্যে মারপিট করে এবং মান্নান ফকির সহ তার লোক জন একজোট হয়ে শরীরের বিভিন্নস্থানে এলোপাথাড়ী ভাবে মারপিট করে জখম করে দেয়। উক্ত সময়ে ইয়াহিয়া প্রাণে বাঁচাতে চিৎকার করতে থাকলে আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে আসিলে বিভিন্ন প্রকারের ভয়ভীতি ও প্রাণনাশকের হুমকি প্রদান করে ঘটনাস্থল থেকে চলে যায়। এ ঘটনায় ওই দিন বিকালে ইয়াহিয়া (৩০)
৩ জনের নাম উল্লেখ করে থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। অভিযোগক্তরা হলেন ১। মোঃ মান্নান ফকির (৫০), পিতাঃ মৃত ছোরহাব আলী ফকির, ২। মোঃ আলম মোল্লা (৩৫), পিতাঃ মৃত সন্তোষ মোল্লা, ৩।মোঃ ইয়াছিন (৩৫), পিতাঃ অজ্ঞাত, তিন জনের নামে এনায়েতপুর থানা অভিযোগ দিয়ে আসেন।

এই ঘটনার সাক্ষী ১। মোছাঃ রহেলা খাতুন (৪৫), স্বামীঃ মোঃ আব্দুর রশিদ, ২। মোছাঃ হাজরা খাতুন(৪৫), স্বামীঃ মোঃ আনোয়ার, ৩। মোছাঃ শাহানাজ (৪০), স্বামীঃ মোঃ নজরুল,

সরেজমিনে যেয়ে পরে দেখা যায়, পাকা সরিষার উপরে বালু দিয়ে চাপা দেওয়া হচ্ছে।
এ বিষয়ে মান্নান ফকিরের কাছে জানতে চাইলে তিনি সাংবাদিক দের বলেন : আমার জমির ফসল ইয়াহিয়ারা সরিষা ফলন করছে।
আর সরিষা রাষ্ট্রের সম্পদ তাই কি, নষ্ট করা না করা আমার বিষয়। রাষ্ট্রের সম্পদনষ্ট করছি তাই সরকার কি করবে। তিনি আরো বলেন আমার বিরুদ্ধে যা ইচ্ছা লিখতে পারেন সমস্যা নেই। আমি কাহকে দেখে ভয় পাই না।

এ ব্যাপারে এনায়েতপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বলেন, জমি সংক্রান্ত বিষয়ে দুইপক্ষের মধ্যে বিরোধ নিয়ে একটি অভিযোগ পেয়েছি। বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।