ঢাকা ০৬:০৮ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
সংবাদ শিরোনাম ::
Logo বিরামপুরে সৌদির সাথে মিল রেখে ১৫টি গ্রামের পরিবারে ঈদুল আজহা উদযাপন Logo শেরপুরে পবিত্র ঈদুল আযহার উপলক্ষে শুভেচ্ছা ও আর্থিক সহায়তা দিলেন ছানুয়ার হোসেন ছানু এমপি Logo “দৈনিক বর্তমান সংবাদের নির্বাহী সম্পাদক ও এশিয়ান টিভি ভালুকা প্রতিনিধি”মো:কামরুল ইসলাম “পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা Logo “প্রেসক্লাব ভালুকা “সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম”পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা Logo “দৈনিক বর্তমান সংবাদের সহ সম্পাদক “সেরাজুর ইসলাম সিরাজ “পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা Logo দৈনিক বর্তমান সংবাদের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক “সুমন মিয়া “পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা Logo “দৈনিক বর্তমান সংবাদের প্রকাশক ও সম্পাদক”মামুন হাসান বিএ”পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা Logo ঈদ আগাম বুকিং কম চায়ের রাজ্য শ্রীমঙ্গলে Logo বিরামপুরে সৌদির সাথে মিল রেখে ১৫টি গ্রামের পরিবারে ঈদুল আজহা উদযাপন Logo শাহজাদপুর উপজেলা কৃষকলীগ সাধারণ সম্পাদকের পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা।

সরিষাবাড়ীতে ইউনিয়ন মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতিকে হেনস্থা ও বসত-ঘর, ভাংচুর-লুট ও মারধর করার অভিযোগ।

সাইদ মাহমুদ
  • আপডেট সময় : ০৩:০৯:৫৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৭ মার্চ ২০২৪ ২১৯ বার পড়া হয়েছে

সাঈদ মাহমুদ,
সরিষাবাড়ী (জামালপুর) প্রতিনিধি:

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে ইউনিয়ন মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি কে নিয়ে প্রপাগান্ডা করার প্রতিবাদ করা নিয়ে হেনস্থা ও বসতঘরের আসবাসপত্র ভাংচুর লুট এবং তার পরিবারের ৩ সদস্যকে মারধর করার ঘটনায় সরিষাবাড়ী থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে ভুক্তভোগী পরিবার। শুক্রবার(১৫ মার্চ) উপজেলার কামরাবাদ ইউনিয়নের কয়ড়া গ্রামে ইউনিয়ন মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাকিলা ইয়াসমিন (শিখা ) বাড়ীতে এ ঘটনাটি ঘটেছে।
এ ঘটনায় কামরাবাদ ইউনিয়ন মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাকিলা ইয়াসমিন (শিখা ) বাদী হয়ে শুক্রবার রাতে সরিষাবাড়ী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। ভুক্তভোগী শাকিলা ইয়াসমিন (শিখা ) উপজেলার কয়ড়া গ্রামের সৌদী প্রবাসী বিপ্লব হোসেনের স্ত্রী। তিনি দুই পুত্র সন্তানের জননী।
ঘটনার সাথে জড়িত উপজেলার কামরাবাদ ইউনিয়নের কয়ড়া গ্রামের হাসমত আলীর ছেলে নাজিম উদ্দিন (২৭) কে প্রধান বিবাদী করে একই গ্রামের জমির মন্ডল এর ছেলে রুবেল মিয়া (৩৮), মৃত গোলাপ মন্ডল এর ছেলে আমিনুল ইসলাম সোহাগ (২৮), পৌর সভার মাইজবাড়ী গ্রামের সুলতান মাহমুদ এর স্ত্রী চামেলী বেগম (৪০) সহ আরও অজ্ঞাত নামা ৫/৬ জন বিবাদী করা হয়েছে।

অভিযোগে জানা গেছে, সরিষাবাড়ী উপজেলার কয়ড়া গ্রামের ভুক্তভোগী শাকিলা ইয়াসমিন (শিখা ) বেগম এর সৌদী প্রবাসী স্বামী বিপ্লব হোসেন বিদেশে থাকার সুবাদে শিখার দূর্বলতার সুযোগ নিয়ে তার নামে বিভিন্ন জনের কাছে মিথ্যা কথা রটাইয়া আসছে। ঘটনার দিন শুক্রবার (১৫ মার্চ)এজাহার ভুক্ত বিবাদীগণ সহ তাহাদের সহযোগী বিবাদীরা শিখার বসত বাড়ীতে এসে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও মিথ্যা অপবাদ নিয়ে সম্মান হানি করে। ওই গালিগালাজ করার সময় শিখার দেবর সোহেল রানা ও ছেলে ইয়াসিন আরাফাত (১৬) প্রতিবাদ করেন।এ সময় ইয়াসিন আরাফাত(১৬) ও তাওহীদুল ইসলাম তাওহিদ(৯) কে এলোপাথারী ভাবে মারপিট করে শরীরের বিভিন্ন স্থানে নীলাফুলা জখম করে। শিখার ছেলে ইয়াসিন আরাফাত ডাকচিৎকার করিতে প্রতিপক্ষরা শিখার বসত ঘরে প্রবেশ ঘরের বিভিন্ন জিনিস পত্র ভাংচুর করে আনুমানিক এক লক্ষ টাকার ক্ষতি সাধন করে। এ ছাড়াও প্রতিপক্ষরা শিখার বসত ঘরের কাচের জানালা ভাংচুর ও আলমারীর ড্রয়ার ভাংচুর করে ড্রয়ারে থাকা নগদ ১লক্ষ,৪৫ হাজার টাকা সহ ৭ভরি ওজনের স্বর্ণের গহনা অনুমানিক যার মূল্য প্রায় -৭,লক্ষ টাকার সম্পদ নিয়া নেয়। মারধর ফিরাতে গিয়ে শিখার দেবর সোহেল মিয়াকেও এলোপাথারী ভাবে মারপিট করে ২টি মোবাইল ফোন কেড়ে নিয়ে ভাংচুর করে পুকুরে ফেলে দেয় যার মূল্য- ৩৯,৫০০/- টাকা। প্রতিপক্ষরা শিখা ও তার পরিবারের সদস্যদের খুন জখমের হুমকী অব্যাহত রেখেছেন। এ হুমকি দেয়ায় ভুক্তভোগী পরিবারের সদস্যরা আতংকে নিরাপত্তাহীনতায় নিজ বাড়ীতে বসবাস করতে না পেরে অন্যর বাড়ী ঘটনার পর থেকে দিনাতিপাত করছেন বলে শিখা অভিযোগ করেন। ভুক্তভোগী পরিবারটি সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের নিকট ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যাবস্থা গ্রহনের দাবী জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে সরিষাবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ মুশফিকুর রহমান জানান, অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।

ট্যাগস :
Translate »

সরিষাবাড়ীতে ইউনিয়ন মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতিকে হেনস্থা ও বসত-ঘর, ভাংচুর-লুট ও মারধর করার অভিযোগ।

আপডেট সময় : ০৩:০৯:৫৯ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৭ মার্চ ২০২৪

সাঈদ মাহমুদ,
সরিষাবাড়ী (জামালপুর) প্রতিনিধি:

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে ইউনিয়ন মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি কে নিয়ে প্রপাগান্ডা করার প্রতিবাদ করা নিয়ে হেনস্থা ও বসতঘরের আসবাসপত্র ভাংচুর লুট এবং তার পরিবারের ৩ সদস্যকে মারধর করার ঘটনায় সরিষাবাড়ী থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে ভুক্তভোগী পরিবার। শুক্রবার(১৫ মার্চ) উপজেলার কামরাবাদ ইউনিয়নের কয়ড়া গ্রামে ইউনিয়ন মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাকিলা ইয়াসমিন (শিখা ) বাড়ীতে এ ঘটনাটি ঘটেছে।
এ ঘটনায় কামরাবাদ ইউনিয়ন মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শাকিলা ইয়াসমিন (শিখা ) বাদী হয়ে শুক্রবার রাতে সরিষাবাড়ী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। ভুক্তভোগী শাকিলা ইয়াসমিন (শিখা ) উপজেলার কয়ড়া গ্রামের সৌদী প্রবাসী বিপ্লব হোসেনের স্ত্রী। তিনি দুই পুত্র সন্তানের জননী।
ঘটনার সাথে জড়িত উপজেলার কামরাবাদ ইউনিয়নের কয়ড়া গ্রামের হাসমত আলীর ছেলে নাজিম উদ্দিন (২৭) কে প্রধান বিবাদী করে একই গ্রামের জমির মন্ডল এর ছেলে রুবেল মিয়া (৩৮), মৃত গোলাপ মন্ডল এর ছেলে আমিনুল ইসলাম সোহাগ (২৮), পৌর সভার মাইজবাড়ী গ্রামের সুলতান মাহমুদ এর স্ত্রী চামেলী বেগম (৪০) সহ আরও অজ্ঞাত নামা ৫/৬ জন বিবাদী করা হয়েছে।

অভিযোগে জানা গেছে, সরিষাবাড়ী উপজেলার কয়ড়া গ্রামের ভুক্তভোগী শাকিলা ইয়াসমিন (শিখা ) বেগম এর সৌদী প্রবাসী স্বামী বিপ্লব হোসেন বিদেশে থাকার সুবাদে শিখার দূর্বলতার সুযোগ নিয়ে তার নামে বিভিন্ন জনের কাছে মিথ্যা কথা রটাইয়া আসছে। ঘটনার দিন শুক্রবার (১৫ মার্চ)এজাহার ভুক্ত বিবাদীগণ সহ তাহাদের সহযোগী বিবাদীরা শিখার বসত বাড়ীতে এসে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও মিথ্যা অপবাদ নিয়ে সম্মান হানি করে। ওই গালিগালাজ করার সময় শিখার দেবর সোহেল রানা ও ছেলে ইয়াসিন আরাফাত (১৬) প্রতিবাদ করেন।এ সময় ইয়াসিন আরাফাত(১৬) ও তাওহীদুল ইসলাম তাওহিদ(৯) কে এলোপাথারী ভাবে মারপিট করে শরীরের বিভিন্ন স্থানে নীলাফুলা জখম করে। শিখার ছেলে ইয়াসিন আরাফাত ডাকচিৎকার করিতে প্রতিপক্ষরা শিখার বসত ঘরে প্রবেশ ঘরের বিভিন্ন জিনিস পত্র ভাংচুর করে আনুমানিক এক লক্ষ টাকার ক্ষতি সাধন করে। এ ছাড়াও প্রতিপক্ষরা শিখার বসত ঘরের কাচের জানালা ভাংচুর ও আলমারীর ড্রয়ার ভাংচুর করে ড্রয়ারে থাকা নগদ ১লক্ষ,৪৫ হাজার টাকা সহ ৭ভরি ওজনের স্বর্ণের গহনা অনুমানিক যার মূল্য প্রায় -৭,লক্ষ টাকার সম্পদ নিয়া নেয়। মারধর ফিরাতে গিয়ে শিখার দেবর সোহেল মিয়াকেও এলোপাথারী ভাবে মারপিট করে ২টি মোবাইল ফোন কেড়ে নিয়ে ভাংচুর করে পুকুরে ফেলে দেয় যার মূল্য- ৩৯,৫০০/- টাকা। প্রতিপক্ষরা শিখা ও তার পরিবারের সদস্যদের খুন জখমের হুমকী অব্যাহত রেখেছেন। এ হুমকি দেয়ায় ভুক্তভোগী পরিবারের সদস্যরা আতংকে নিরাপত্তাহীনতায় নিজ বাড়ীতে বসবাস করতে না পেরে অন্যর বাড়ী ঘটনার পর থেকে দিনাতিপাত করছেন বলে শিখা অভিযোগ করেন। ভুক্তভোগী পরিবারটি সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের নিকট ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যাবস্থা গ্রহনের দাবী জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে সরিষাবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ মুশফিকুর রহমান জানান, অভিযোগ পেয়েছি তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।